ঈদের ছড়ারোগ


দুরন্ত বলেছেন :
দারুণ লাগলো।
আইডিয়াটাও খুব ভালো।
শুভেচ্ছা 🙂
বলেছেন :

তবে শুরু করুন ছড়ার কেচ্ছা! 🙂 Continue reading

ভেঙে ফেল শহীদ মিনার


ভেঙে গুড়িয়ে দে সব শহীদ মিনার
রেখে আর কী হবে ওসব জঞ্জাল?
রাজাকার মানে সেবক!
শালা নব্য রাজাকার!
রক্ত খাবি?
তোরা শেয়ালও না
কুত্তাও না
হায়েনাও না
শকুনও না
তোরা আরো খারাপ
তোরা রাজাকার!
তারও চেয়ে আমরা খারাপ
যারা তোদের বাঁচিয়ে রেখেছি!
ধিক এই বেঁচে থাকা!

এক বিশ্ব ধ্বংসস্তূপ ভাসুক ৭টি রক্তসাগরে


আয়রে জঙ্গীবাদ!
তোদের আর কী কী চাই নিয়ে যা!
ভেঙে ফেল যা কিছু আছে মানুষ যা করেছে সৃষ্টি
কী দরকার রেখে আর ঐতিহ্য-ইতিহাস-কৃষ্টি?
ভেঙে ফেল সব মূর্তী
কর সব অবগুণ্ঠিত
বেঁচে থাক নরপিশাচ সব
এক বিশ্ব ধ্বংসস্তূপ; গুড়িয়ে দে সব যা আছে সভ্যতা!
সাতটি সাগর লাল করে দে
যারা সব তোদের অমত, তাদেরই রক্তে!

ছ-শব্দী ছড়া -২


আমিও আর ‘আমি ও’ এক যে নয়
ব্যাকরণ দেখতে তব শিঘ্র আজ্ঞা হয়।
যা লিখছো তা কখনো কবিতা নয়।
ছন্দ মিলানো একে ছড়াই যে কয়।
হেমিংওয়ের যে ছ-শব্দী? গল্প নয় কবিতা।
মুজিবদা লিখেছিলন আবার পড়ে আসুন তা।

[ছড়াটি পড়ার আগে আগের ছড়াটিও পড়ুন দয়া করে।]

ছ-শব্দী ছড়া -১


বড় চ্যালেঞ্জ দিলেন আপনি স্বঘোষিত পাগল,
ছয় শব্দে আয়াসসাধ্য ছন্দের এই আদল
ভালো আপনার নিরীক্ষা ছ-শব্দী ছড়া নিয়ে
আমিও তবে চেষ্টা করি ছ-শব্দী দিয়ে।
তেমন কঠিন নয় এই ছ-শব্দী ছড়া
ছন্দ শব্দ গেঁথে দিলেই অনায়াসে গড়া।:D

[ছড়াটি লিখলাম জাকারিয়া ভাইয়ের ওপেন চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করে। ছড়া নিয়ে আমার গবেষণা অবশ্য ৩/৪দিনের, বলা যায় প্রথম আলো ব্লগের উপন্যাসের মহড়া শেষ হবার পর। তাই, ভুল-চুক হলে ক্ষমার চোখে দেখবেন সবাই। ]